hms_bangla_logo

  • English
  • বাংলা

হজ্বযাত্রী সংবাদ

 হজে যাওয়ার জন্য প্রথম ধাপ প্রাক্-নিবন্ধন:

সৌদি ‘ই হজ সিস্টেমের’ সঙ্গে সমন্বয়ের জন্য হজযাত্রীদের জন্য প্রাক্-নিবন্ধন পদ্ধতি চালু করা হয়েছে । নিজে অথবা ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অনুমোদিত বৈধ হজ এজেন্সির মাধ্যমে প্রাক-নিবন্ধনের প্রথম ধাপ সম্পন্ন করে পেমেন্ট ভাউচারসহ ব্যাংকে টাকা জমা দিন এবং আপনার  প্রাক্-নিবন্ধন সনদ সংগ্রহ করুন । প্রতি বছরে সৌদি সরকারের সাথে চুক্তি মোতাবেক নির্ধারিত কোটা অনুযায়ী জাতীয় হজ ও ওমরাহ নীতির ধারার ভিত্তিতে হজযাত্রীদের নিবন্ধন সম্পন্ন হবে । প্রাক্-নিবন্ধন সংক্রান্ত কোন তথ্য জানার প্রয়োজন হলে ০৯৬০২৬৬৬৭০৭ নম্বরে টেলিফোনে যোগাযোগ করতে পারবেন ।

প্রাক্-নিবন্ধন সংক্রান্ত তথ্য ও সহায়তার জন্য উপরের লিংকটিতে ক্লিক করুন।

প্রাক্-নিবন্ধন করতে যা লাগবে:

  • জাতীয় পরিচয়পত্র, (১৮ বছরের নিচে বয়স যাদের, জাতীয় পরিচয়পত্র নেই সেক্ষেত্রে অভিভাবকের সঙ্গে  জন্ম  নিবন্ধন সনদ দিয়ে প্রাক নিবন্ধন করতে পারবেন) ।
  • মোবাইল নম্বর (যেখানে এসএমএস পাবেন)
  • সরকারি ব্যবস্থাপনার জন্য ৩০,০০০(ত্রিশ হাজার টাকা), বেসরকারি ব্যবস্থাপনার জন্য ৩০,৭৫২ (ত্রিশ হাজার সাতশত বায়ান্ন) টাকা জমা দিতে হবে ।

যেখানে প্রাক্-নিবন্ধন করা যাবে:

  • ইউনিয়ন তথ্য সেবা কেন্দ্রে
  • জেলা প্রশাসকের কার্যালয়
  • ইসলামিক ফাউন্ডেশনের কার্যালয়
  • ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অনুমোদিত বৈধ হজ এজেন্সি
  • পরিচালক, হজ অফিস, আশকোনা, ঢাকা

এর যেকোনো এক জায়গা থেকে  হজযাত্রী নিজে অথবা তার প্রতিনিধি প্রাক্-নিবন্ধন করতে পারবেন  ।

ধাপে ধাপে প্রাক্-নিবন্ধন:

প্রাক্-নিবন্ধনের প্রথম ধাপে জাতীয় পরিচয়পত্র তথ্য ভান্ডার থেকে (নাম, পিতার নাম, মাতার নাম,  পেশা, জন্মতারিখ, স্থায়ী ঠিকানা, নারী/পুরুষ, বৈবাহিক অবস্থা) তথ্য স্বয়ংক্রিয় পদ্ধতিতে যাচাই হবে ।

হজযাত্রী সরকারি নাকি বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় হজে যেতে ইচ্ছুক সে সংক্রান্ত  তথ্য ।

ব্যাংকে টাকা জমা দেওয়ার জন্য ট্র্যাকিং নম্বরসংবলিত প্রিন্ট করা পেমেন্ট ভাইচারসহ সরকার নির্ধারিত ব্যাংকে (তালিকা পরে জানানো হবে) সরকারি ব্যবস্থাপনার জন্য ৩০,০০০ (ত্রিশ হাজার টাকা),  বেসরকারি ব্যবস্থাপনার জন্য ৩০,৭৫২ (ত্রিশ হাজার সাতশত বায়ান্ন) টাকা জমা দিতে হবে ।

(উল্লেখ্য নির্ধারিত সময়ের মধ্যে টাকা জমা না দিলে পুনরায় প্রাক-নিবন্ধন করতে হবে।)

ব্যাংক টাকা পরিশোধের পর ব্যাংক থেকে হজের প্রাক্-নিবন্ধন সনদ দেওয়া হবে। (প্রাক নিবন্ধন সনদে জাতীয় পরিচয়পত্র তথ্য, প্রাক্-নিবন্ধন নম্বর, পাসপোর্টের তথ্য, ব্যাংকে টাকা জমা দেওয়া বিবরণ থাকবে) একই সঙ্গে হজযাত্রীর মোবাইল নম্বরে এসএমএস প্রেরণ করে প্রাক নিবন্ধন নিশ্চিত করা হবে ।

জাতীয় হজ নীতির আলোকে প্রাক্-নিবন্ধন নম্বর চলতি বছর হজে যাওয়ার জন্য নির্বাচিত হলে হজযাত্রীর মোবাইলে এসএমএস দেওয়া হবে ।

হজে যাওয়ার জন্য নির্বাচিত হলে হজযাত্রীর মোবাইলে এসএমএস পাওয়ার পর (নিবন্ধন কার্যক্রম শুরু হবে)।  নির্ধারিত সময়ের মধ্যে হজ অফিস/ সংশ্লিষ্ট এজেন্সি প্রাক-নিবন্ধন তথ্য ভান্ডার থেকে হজ যাত্রীদের আবেদন অনলাইনে গ্রহণ করে প্যাকেজের সম্পূর্ণ টাকা পরিশোধ পরিশোধিত মর্মে হজ অফিস/ সংশ্লিষ্ট  হজ এজেন্সি নিশ্চিত করলে পিলগ্রিম আইডি (PID) তৈরি হবে। সম্পূর্ন টাকা পরিশোধ করলে হজযাত্রীর মোবাইল নম্বরে এসএমএস প্রেরণ করে PID নিশ্চিত করা হবে। হজে যাওয়ার জন্য পিলগ্রিম আইডি অত্যাবশক ।

হজযাত্রীকে প্রদত্ত প্রাক পরিবর্তনযোগ্য প্রাক- নিবন্ধন নম্বর (serial) কোনভাবেই পরিবর্তনযোগ্য নয়। তাই হজে যাওয়ার প্রথম ধাপ  প্রাক্-নিবন্ধন করুন ।

প্রাক্-নিবন্ধনে প্রাপ্ত তথ্যাদি পুলিশের বিশেষ শাখার মাধ্যমে যাচাই করা হবে ।

প্রাক্-নিবন্ধন বাতিল করতে চাইলে

প্রাক্-নিবন্ধন করে যদি হজে গমন না করেন তাহলে হজযাত্রীর অগ্রীম জমাকৃত জামানত থেকে সার্ভিস চার্জ ২ হাজার এবং প্রসেসিং ফি বাবদ ৩ হাজার  মোট ৫ হাজার টাকা বাদ দিয়ে বাকি টাকা ফেরত পাবেন ।

১৮ বছরের নিচে বয়স যাদের

১৮ বছরের নিচে বয়স যাদের, জাতীয় পরিচয়পত্র নাই সেক্ষেত্রে অভিভাবকের সঙ্গে জন্ম নিবন্ধন সনদ দিয়ে প্রাক্-নিবন্ধন করতে পারবেন। ও পুলিশের বিশেষ শাখার মাধ্যমে যাচাই করা হবে ।


২০১৫খ্রিঃ/(১৪৩৬ হিজরী) সনের হজ্জযাত্রীদের মোয়াল্লেম ফি সার্টিফিকেট ও ব্যাংক তালিকা জমাকরন সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তি।

ফেব্রুয়ারি 23, 2015

২০১৫খ্রিঃ/১৪৩৬ হিজরী সনের বেসরকারী ব্যবস্থাপনার হজ্জযাত্রীদের ডাটা এন্ট্রি  সম্পন্ন হয়েছে । সকল হজ্জ এজেন্সীর মালিক/প্রতিনিধি ও সংশ্লিষ্ট সকলকে জানানো যাচ্ছে যে স্ব-স্ব হজ্জ এজেন্সীর ব্যাংক তালিকা হজ্জ ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম থেকে ডাউনলোড করার পর প্রিন্ট করে হজ্জ অফিসে আগামী ০৫/০৩/২০১৫ ইং তারিখের মধ্যে জমা প্রদান করতে হবে । এ জন্য হজ্জ ম্যানেজমেন্ট সিস্টেমে ”Pilgrim List-2015 for Bank Deposit ” নামে একটি রিপোর্ট করা হয়েছে । সৌদি কর্তৃপক্ষকে আগামী ০৫.০৩.২০১৫ ইং তারিখের মধ্যে হজ্জযাত্রীদের তথ্য সরবরাহ্ করতে হবে বিধায় ডাটা পাবলিশ করার জন্য ব্যাংকে টাকা জমা প্রদান করে ব্যাংক সার্টিফিকেট (মোয়াল্লেম ফি সার্টিফিকেট) ও হজ্জযাত্রীদের তালিকাসহ হজ্জ অফিসে জমা প্রদান করার জন্য অনুরোধ করা হলো ।

বিস্তারিত তথ্য ডাউনলোড করার জন্য এইখানে ক্লিক করুন

হজ্জ-২০১৪(১৪৩৫হিঃ) এ সৌদি কর্তৃপক্ষ কর্তৃক অভিযুক্ত হজ্জ এজেন্সীসমূহের তালিকা প্রকাশ।

ফেব্রুয়ারি 22, 2015

বাংলাদেশ হজ্জ অফিস, জেদ্দা, সৌদি আরব হতে গত ২১.০২.২০১৫ খ্রিঃ তারিখে জনাব মোঃ আসাদুজ্জামান, কাউন্সেলর (হজ্জ) স্বাক্ষরিত সৌদি কর্তৃপক্ষ কর্তৃক ৬৭(সাতষট্টি)টি অভিযুক্ত হজ্জ এজেন্সীর তালিকা পাওয়া গিয়েছে (কপি সংযুক্ত)। উল্লিখিত হজ্জ এজেন্সীসমূহ ২০১৫(১৪৩৬হিঃ) সনের হজ্জ কার্যক্রমে অংশগ্রহণ করতে পারবে না মর্মে কাউন্সেলর (হজ্জ) টেলিফোনে জানিয়েছেন। সৌদি কর্তৃপক্ষ কর্তৃক আনিত অভিযোগের বিস্তারিত বিবরণী সৌদি আরব থেকে প্রাপ্তি সাপেক্ষে পরবর্তীতে প্রেরণ করা হবে।  এমতাবস্থায়, উল্লিখিত ৬৭(সাতষট্টি)টি হজ্জ এজেন্সীর বিষয়ে পরবর্তী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য নির্দেশক্রমে অনুরোধ করা হ’ল।

বিস্তারিত তথ্য ডাউনলোড করার জন্য এইখানে ক্লিক করুন

বেসরকারী ব্যবস্থাপনার হজ্জযাত্রীদের টাকা জমাদান পদ্ধতি পুনঃনির্ধারন সংক্রান্ত জরুরী বিজ্ঞপ্তি

ফেব্রুয়ারি 20, 2015

সরকার ২০১৫ খ্রিঃ/১৪৩৬ হিজরী সনে সুষ্ঠু হজ্জ ব্যবস্থাপনার স্বার্থে বাংলাদেশের বেসরকারী ব্যবস্থাপনার হজ্জযাত্রীদের প্যাকেজের আওতায় নিবন্ধন ফি (Registration Fee) এর টাকা জমাদান পদ্ধতি পুনঃনির্ধারন করেছেন (ডাউনলোড করে দেখুন) ।

বিস্তারিত তথ্য ডাউনলোড করার জন্য এইখানে ক্লিক করুন

রিভিউ অন্তে শাস্তি প্রদান

ফেব্রুয়ারি 4, 2015

বেসরকারী হজ্জ ব্যবস্থাপনায় নিয়োজিত তার এজেন্সীর বিরুদ্ধে ২০১৪ (১৪৩৫হিঃ) সনের হজ্জে প্রতারনা/অনিয়ম/অব্যবস্থাপনার অভিযোগ উত্থাপিত হলে ইতোপূর্বে যথাযথ পদ্ধতি অনুসরন করতঃ তদন্ত অন্তে শাস্তি প্রদান করা হয় । সরকার কর্তৃক প্রদত্ত শাস্তির বিষয়ে তার রিভিউ আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে শুনানি অন্তে রিভিউ কমিটি পূর্বে প্রদত্ত শাস্তি বহাল/পুনঃবিবেচনা করেছেন।

বিস্তারিত তথ্য ডাউনলোড করার জন্য এইখানে ক্লিক করুন

হজ্জ প্যাকেজ-২০১৫ খ্রিঃ/১৪৩৬ হিজরী

ডিসেম্বর 10, 2014

আগামী ২৩ সেপ্টেম্বর/৯ যিলহজ্জ তারিখে ২০১৫খ্রিঃ/১৪৩৬হিজরী সালের পবিত্র হজ্জ অনুষ্ঠিত হবে । পবিত্র হজ্জব্রত পালনের জন্য সরকারি ব্যবস্থাপনায় ও ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয় কর্তৃক অনুমোদিত হজ্জ এজেন্সির মাধ্যমে বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় সৌদি আরব গমন করা যাবে । বাংলাদেশ হতে সরকারি ব্যবস্থাপনায় ১০,০০০ (দশ হাজার) ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় ৯১,৭৫৮(একানব্বই হাজার সাতশত আটান্ন) জন সর্বমোট ১,০১,৭৫৮ (এক লক্ষ এক হাজার সাতশত আটান্ন) জন হজ্জযাত্রী পবিত্র হজ্জব্রত পালনের জন্য সৌদি আরব গমন করতে পারবেন । হজ্জ ২০১৫ খ্রিঃ/১৪৩৬ হিজরীর জন্য সরকার কর্তৃক হজ্জ প্যাকেজ ঘোষনা করা হয়েছে (হজ্জ প্যাকেজ টি ডাউনলোড করে বিস্তারিত দেখুন)।

বিস্তারিত তথ্য ডাউনলোড করার জন্য এইখানে ক্লিক করুন

প্রথম ফিরতি হজ্জ ফ্লাইটের যাত্রা শুরুঃ

অক্টোবর 9, 2014

আজ ৯ই অক্টোবর ৫:২৩ মিনিটে প্রথম ফিরতি হজ্জ ফ্লাইট বিজি২০১২,  ৪১৬জন হাজী নিয়ে বাংলাদেশের উদ্দেশ্যে কিং আবদুল আজিজ বিমান বন্দর, জেদ্দা ত্যাগ করেছে।

২০১৪ ইং সালের ফিরতি প্রথম হজ্জ ফ্লাইট হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করেছে

অক্টোবর 9, 2014

পরম করুনাময় আল্লাহর অশেষ রহমতে হজ্জ ২০১৪ ইং সালের ফিরতি প্রথম হজ্জ ফ্লাইট “বিজি ২০১২” আজ বৃহস্পতিবার ০৯ অক্টোবর, ২০১৪ ইং বাংলাদেশ সময় ২ টা ৩৫ মিনিটে ৪১৬ জন হাজীদের নিয়ে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করেছে।

1

 

 

 

 

 

 

সৌদি এ্যারাবিয়ান এয়ারলাইন্সের সিটি চেক-ইন সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তি

অক্টোবর 8, 2014

এতদ্বারা সংশ্লিষ্ট সকলের সদয় অবগতির জন্য জানানো যাচ্ছে যে,

১. সৌদি এ্যারাবিয়ান এয়ারলাইন্সের মাধ্যমে আগত যে সকল হজ্জযাত্রী ডেডিকেটেড ফ্লাইটে মক্কা হতে জেদ্দা হয়ে ঢাকা’য় গমন করবেন তাদের মালামাল ১০০% সিটি চেক-ইন করতে হবে।
২. সৌদি এ্যারাবিয়ান এয়ারলাইন্সের মাধ্যমে আগত যে সকল হজ্জযাত্রী ডেডিকেটেড ফ্লাইটে মদিনা হতে সরাসরি ঢাকা’য় গমন করবেন তাদের মালামাল ১০০% সিটি চেক-ইন করতে হবে।
৩. সৌদি এ্যারাবিয়ান এয়ারলাইন্সের মাধ্যমে আগত যে সকল হজ্জযাত্রী ডেডিকেটেড ফ্লাইটে মদিনা হতে জেদ্দা হয়ে ঢাকা’য় গমন করবেন তাদের মালামাল সিটি চেক-ইন করার প্রয়োজন হবে না।
৪. সৌদি এ্যারাবিয়ান এয়ারলাইন্সের মাধ্যমে আগত যে সকল হজ্জযাত্রী কমার্শিয়াল ফ্লাইটে ঢাকা’য় গমন করবেন তাদের মালামাল সিটি চেক-ইন করার প্রয়োজন হবে না।

বিস্তারিত তথ্য ডাউনলোড করার জন্য এইখানে ক্লিক করুন

আজ পবিত্র হজ্জ

অক্টোবর 3, 2014

আজ ৯ জিলহজ্জ , ১৪৩৫ হিজরী ( ৩ অক্টোবর, ২০১৪ ইং) শুক্রবার পবিত্র হজ্জ পালিত হচ্ছে। বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্ত হতে পবিত্র হজ্জের উদ্দেশ্যে আগত ধর্মপ্রাণ মুসলমানগণ সমবেত হয়েছেন আরাফার ময়দানে। লাব্বায়িক আল্লাহুম্মা লাব্বায়িক ………..  ধ্বনিতে মুখরিত আরাফার প্রান্তর। সারাদিন আরাফায় অবস্থান করে সূর্যাস্তের পর হতে হাজীগণ মুযদালিফার উদ্দেশ্যে রওনা হবেন এবং সেখানে রাত্রিযাপন করবেন।

আগামীকাল পবিত্র হজ্জ

অক্টোবর 2, 2014

আগমীকাল ৯ই জ্বিলহ্জ্জ, ১৪৩৫ হিজরী (৩রা অক্টোবর, ২০১৪ খ্রিঃ) উকুফে আরাফাহ্, পবিত্র হজ্জের দিন। বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আগত লাখ লাখ হজ্জযাত্রীগণ আগমীকাল আরাফায় অবস্থান করবেন এবং সূর্যাস্তের সঙ্গে সঙ্গে আরাফাহ্ ত্যাগ করে মুজদালিফায় গমনের মাধ্যমে পালন করবেন হজ্জের প্রধান ফরজ। এই দিন লাখ লাখ হজ্জযাত্রীগণের লাব্বাইক আল্লাহুম্মা লাব্বাইক, লাব্বাইক লা-শারিকা লাকা লাব্বাইক……………ধ্বনিতে মুখরিত থাকবে আরাফাহ প্রান্তর।

উল্লেখ্য সারা বিশ্ব থেকে আগত হজ্জযাত্রীগণের আজ যোহরের ওয়াক্তের পূর্বেই মিনায় সমবেত হওয়ার মধ্য দিয়ে শুরু হয়েছে হজ্জের আনুষ্ঠানিকতা। এই মুহেুর্তে হজ্জযাত্রীগণ মিনার তাঁবুতে ইবাদত বন্দেগির মধ্যদিয়ে সময় অতিবাহিত করছেন।

ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মাননীয় মন্ত্রীর হারাম শরীফের স্থান বৃদ্ধি সংক্রান্ত কিং আব্দুল্লাহ প্রকল্পের বিশেষ মতবিনিময় সভায় যোগদান

সেপ্টেম্বর 28, 2014

ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মাননীয় মন্ত্রী জনাব অধ্যক্ষ মতিউর রহমান ও সৌদি আরবে নিযুক্ত বাংলাদেশের মান্যবর রাষ্ট্রদূত জনাব মোঃ শহিদুল ইসলাম আজ সন্ধ্যায় রাজকীয় সৌদি সরকারের আমন্ত্রণে হারাম শরীফের স্থান বৃদ্ধি সংক্রান্ত কিং আব্দুল্লাহ প্রকল্পের বিশেষ মতবিনিময় সভায় যোগদান করেন। সভায় সভাপতিত্ব করেন হারাম শরীফের প্রধান ইমাম এবং হারাম শরীফ পরিচালনা কমিটির প্রধান জনাব আব্দুর রহমান সুদাইস। সভায় অন্যান্যের মধ্যে সকল মুসলিম দেশের ধর্মমন্ত্রীগণ এবং রাষ্ট্রদূতগণ উপস্থিত ছিলেন।

বাংলাদেশ বিমানের ফিরতি ফ্লাইটের হজ্জযাত্রীদের লাগেজ বিষয়ক জরুরী ঘোষণা

সেপ্টেম্বর 30, 2014

বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী ও হজ্জপ্রতিনিধি দল ২০১৪ এর সম্মানিত সদস্য রাশেদ খান মেনন এম. পি. জানান, বাংলাদেশ বিমানের ফিরতি ফ্লাইটের হজ্জযাত্রীগণ দুইটি (০২) ব্যাগে সর্বোচ্চ ৪০ কে.জি. মালামাল বহন করতে পারবেন। তবে একটি ব্যাগে সর্বোচ্চ ২৩ কে.জি. মালামাল বহন করা যাবে।

মন্ত্রী আজ স্থানীয় সময় দুপুর ১:০০ টায় হজ্জ অফিস, মক্কায় বাংলাদেশ বিমানে আগত হজ্জযাত্রীদের অনুরোধের প্রেক্ষিতে এই ঘোষণা প্রদান করেন। ইতোপূর্বে বিমানের হজ্জযাত্রীদের সর্বোচ্চ ৩০ কেজি মালামাল বহনের অনুমতি ছিল। এছাড়া হাতব্যাগে ৭ কে.জি মালামাল বহনের পূর্বানুমতি বহাল থাকবে।